৪৪) ঢাকা শহরে পূজার মন্ডপ ও হাটের সংখ্যার পরিমাণ

৪৪) ঢাকা শহরে পূজার মন্ডপ ও হাটের সংখ্যার পরিমাণ

ঢাকা শহরে পূজার সময় মণ্ডপ হয় ২০০ স্পটে কিন্তু ঈদের সময় হাট হচ্ছে মাত্র ২০টি লোকেশনে। মন্ত্রী-আমলা ও মিডিয়া প্রায় বলে- হাটের কারণে নাকি যানজট হয়। তাই হাটের সংখ্যা কমিয়ে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে ঢাকা শহরের বাইরে। অথচ ঢাকা শহর এমন এক শহর, যেই শহরে ৩৬৫দিনই যানজট লেগে থাকে। হাজার হাজার কোটি টাকা খরচ করেও যানজট কমাতে পারনি সরকার। কিন্তু দোষ পড়লো সেই গরুর হাট নিয়ে। পূজার মণ্ডপের উপর কিন্তু যানজটের দোষ নেই, দোষ নেই রথযাত্রা আর জন্মাষ্ঠমীর মিছিলের উপর দোষ নেই রাজনৈতিক দলগুলোর মিটিং মিছিলের উপরও দোষ শুধু হাট আর কোরবানির উপর। তাই- দুই ঢাকা সিটিতে কমপক্ষে ৫০-৬০টি হাটের ব্যবস্থা করা করা উচিত। জনগণকে স্বাচ্ছন্দে তাদের ঈদ উতসব করতে দেওয়া হোক। হিন্দুরা স্বাচ্ছন্দে ধর্ম পালন করতে পারবে, কিন্তু মুসলমানরা পারবে না এই নীতি থেকে সরকার ও প্রশাসনকে অবশ্যই সরে আসতে হবে।

এই সম্পর্কিত আরো পোস্ট সমূহ



হযরত হাবীল আলাইহিস সালাম উনার ও কাবীলের কুরবানী

পৃথিবীর প্রথম কুরবানী সংঘটিত হয় হযরত আবুল বাশার ছফিউল্লাহ আলাইহিস সালাম উনার যমীনে অবস্থানকালীন সময় থেকেই। হযরত আবুল বাশার ছফিউল্লাহ আলাইহিস সালাম ও উম্মুল বাশার

বিস্তারিত পড়ুন

হযরত ইসমাঈল আলাইহিস সালাম তিনিই যবীহুল্লাহ

‘তাফসীরে মাযহারী’ উনার মধ্যে উল্লেখ আছে, “এ কথা সুনিশ্চিত যে, ‘পবিত্র সূরা ছফফাত শরীফ’ উনার ১০১নং আয়াত শরীফ উনার মধ্যে উদ্ধৃতغلام حليم অর্থাৎ ‘ধৈর্যশীল পুত্র’

বিস্তারিত পড়ুন