কোরবানি নিষিদ্ধ করলো ভারত !!!

কোরবানি নিষিদ্ধ করলো ভারত !!!

ভারতে গরু নিষিদ্ধের পর এবার পুরো কোরবানি নিষিদ্ধের ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রীয় সরকার থেকে প্রত্যেক রাজ্য সরকারের কাছে চিঠি পাঠিয়ে কড়াকড়ি নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এ সম্পর্কে গত ২৫শে আগস্ট দৈনিক আনন্দবাজার পত্রিকা জানায়- “গবাদি পশুর হত্যা এবং পরিবহণের উপরে বিধিনিষেধ আরোপ করে রাজ্য সরকারকে চিঠি পাঠাল কেন্দ্র। বকর ইদ বা কুরবানির ইদে অবাধে গরু, বাছুর, উট এবং অন্যান্য পশুর নিধন যেন না হয়। নির্দেশ ভারতীয় প্রাণী কল্যাণ বোর্ডের।”

আনন্দবাজার পত্রিকায় আরো বলা হয়- শুধু পশ্চিমবঙ্গ নয়, সবক’টি রাজ্য সরকারকেই ভারতীয় প্রাণী কল্যাণ বোর্ড এই চিঠি পাঠিয়েছে। …পশু হত্যা বিরোধী আইন এবং আদালতের বিভিন্ন রায়ের পুঙ্খানুপুঙ্খ উল্লেখ করা হয়েছে সেই চিঠিতে। আইন ভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার কথাও একাধিক বার লেখা হয়েছে।” চিঠিতে স্পষ্ট করে ‘বকর ইদ’ উল্লেখ আছে। বলাবাহুল্য প্রাণী হত্যা বিরোধী এই আইনের চিঠি কিন্তু কালী পূজা, পাঠা বলী উৎসবের সময় দেওয়া হয়নি। শুধুমাত্র কোরবানি ঈদ বন্ধ করার জন্য এই আইনের প্রয়োগ।

কি বুঝলেন ???? বাংলাদেশের মুসলমানরা যখন সেক্যুলারিজমের আনন্দে ভাসছে, মসজিদ ভেঙ্গে মন্দির গড়ে দিচ্ছে তখন ভারত সরকার ডাইরেক্ট কোরবানি নিষিদ্ধ করে দিয়েছে। এতদিন শুধু গরুতে নিষেধ ছিলো, কিন্তু এখন সবকিছুতেই নিষেধ। মানে মুসলমানদের ধর্মীয় উৎসবেই নিষেধ। আর এরপর হয়ত মুসলমানই নিষিদ্ধ। আসলে মুসলমানরাই সাম্প্রদায়িক-জঙ্গী, আর হিন্দুরা সব অসাম্প্রায়িক সহনশীল… খবরের সূত্র: আনন্দবাজার- http://goo.gl/C3bv8J চ্যানেল আই- http://goo.gl/lMe6hD ইত্তেফাক- http://goo.gl/bxo0Pg

এই সম্পর্কিত আরো পোস্ট সমূহ



হযরত হাবীল আলাইহিস সালাম উনার ও কাবীলের কুরবানী

পৃথিবীর প্রথম কুরবানী সংঘটিত হয় হযরত আবুল বাশার ছফিউল্লাহ আলাইহিস সালাম উনার যমীনে অবস্থানকালীন সময় থেকেই। হযরত আবুল বাশার ছফিউল্লাহ আলাইহিস সালাম ও উম্মুল বাশার

বিস্তারিত পড়ুন

হযরত ইসমাঈল আলাইহিস সালাম তিনিই যবীহুল্লাহ

‘তাফসীরে মাযহারী’ উনার মধ্যে উল্লেখ আছে, “এ কথা সুনিশ্চিত যে, ‘পবিত্র সূরা ছফফাত শরীফ’ উনার ১০১নং আয়াত শরীফ উনার মধ্যে উদ্ধৃতغلام حليم অর্থাৎ ‘ধৈর্যশীল পুত্র’

বিস্তারিত পড়ুন